Cancel Preloader

সম্পাদকীয়

সম্পাদকীয়

সূফী সম্রাট হুজুর কেব্লাজানের সহধর্মিণী আওলাদে রাসুল, কুতুবুল আকতাব, দুররে মাকনুন, খাতুনে জান্নাত হযরত সৈয়দা হামিদা বেগম দয়াল মা (রহ.) ১৯৫৭ সালের ৮ই মে, ১৩৬৪ বঙ্গাব্দের ২৫শে বৈশাখ, বুধবার ফরিদপুর জেলার সদরপুর উপজেলাধীন চন্দ্রপাড়া গ্রামে আপন পিত্রালয়ে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর পিতা হলেন সুলতানিয়া মোজাদ্দেদিয়া তরিকার ইমাম সৈয়দ আবুল ফজল সুলতান আহমদ (রহ.)

সম্পাদকীয়

ইসলামের পাঁচটি মূল স্তম্ভের মধ্যে তৃতীয় গুরুত্বপূর্ণ স্তম্ভ হচ্ছে রোজা। মহাগ্রন্থ আল কুরআনে মহান আল্লাহ্ রমজান মাসব্যাপী প্রতিটি প্রাপ্তবয়স্ক নর-নারীর জন্য রোজা পালন করাকে ফরজ ঘোষণা করেছেন। এ প্রসঙ্গে মহান আল্লাহ্ এরশাদ করেন, “হে মু’মিনগণ তোমাদের উপর রোজা ফরজ করা হলো, যেরূপ ফরজ করা হয়েছিল তোমাদের পূর্ববর্তী লোকদের উপর, যেন তোমরা মোত্তাকি

সম্পাদকীয়

অবারিত রহমত ও বরকত লাভের স্নিগ্ধ বার্তা নিয়ে বছর ঘুরে আবার আমাদের মাঝে ফিরে এসেছে ‘বিশ্ব আশেকে রাসুল (সা.) সম্মেলন’। এই সম্মেলন দেশ ও বিদেশের লক্ষ লক্ষ আশেকে রাসুলদের অধ্যাত্ম প্রেমের এক মহা মিলনমেলা। দীর্ঘ একটি বছরের প্রতীক্ষার প্রহর শেষে আমার মহান মোর্শেদ মহান সংস্কারক মোহাম্মদী ইসলামের পুনর্জীবনদানকারী সূফী সম্রাট হযরত সৈয়দ

সম্পাদকীয়

আমার মহান মোর্শেদ দেওয়ানবাগ শরীফের প্রতিষ্ঠাতা মহান সংস্কারক মোহাম্মদী ইসলামের পুনর্জীবনদানকারী সূফী সম্রাট হযরত সৈয়দ মাহ্বুব-এ-খোদা দেওয়ানবাগী (রহ.) হুজুর কেব্লাজানের ৭৪তম শুভ জন্মবার্ষিকী স্মরণে আগামী ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ইং, রোজ-শুক্রবার ময়মনসিংহের ত্রিশালে অবস্থিত ‘বাবে বরকত’ দেওয়ানবাগ শরীফে অনুষ্ঠিত হবে বিশ্ব আশেকে রাসুল (সা.) সম্মেলন। এই সম্মেলনে জামে আম্বিয়া ও জামে আউলিয়া রুহানিতে উপস্থিত

সম্পাদকীয়

১৪ই ডিসেম্বর, ২০২৩ইং আমাদের মহান মোর্শেদ সূফী সম্রাট হযরত সৈয়দ মাহ্বুব-এ-খোদা দেওয়ানবাগী (রহ.) হুজুর কেবলাজানের ৭৪তম শুভ জন্মদিন। জগৎশ্রেষ্ঠ এই মহামানব ১৯৪৯ সালের ১৪ই ডিসেম্বর, ১৩৫৬ বঙ্গাব্দের ২৭শে অগ্রহায়ণ, বুধবার ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার আশুগঞ্জ উপজেলাধীন বাহাদুরপুর গ্রামের সরকার বাড়িতে শুভ জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর পিতার নাম হযরত আবদুর রশিদ সরকার (রহ.), যিনি হযরত রাসুল

মহান সংস্কারক, মোহাম্মদী ইসলামের পুনর্জীবনদানকারী, সূফী সম্রাট হযরত সৈয়দ মাহ্বুব-এ-খোদা দেওয়ানবাগী (রহ.) হুজুর কেবলাজান

সূফী সম্রাট হুজুর কেবলাজান রচিত ‘মুক্তি কোন পথে?’ কিতাব থেকে লেখাটি সংকলন করা হয়েছে।-সম্পাদক অলী-আল্লাহ্গণের পরিচয় ‘অলী-আল্লাহ” আরবি শব্দ। অভিধানে শব্দটির অর্থ দেওয়া হয়েছে- আল্লাহর বন্ধু, আল্লাহ্ওয়ালা। এটি এক বচন, বহু বচনে আওলিয়াউল্লাহ অর্থাৎ আল্লাহর বন্ধুগণ। এ প্রসঙ্গে পবিত্র কুরআনে আল্লাহ্ বলেন- “আলা ইন্না আওলিইয়াআল্লাহি লা খাওফুন ‘আলাইহিম ওয়ালা হুম ইয়াহঝানূন।” অর্থাৎ-

সর্বকালের সর্বযুগের সর্বশ্রেষ্ঠ মহামানব হলেন রাহমাতুল্লিল আলামিন হযরত রাসুল (সা.)

সর্বকালের সর্বযুগের সর্বশ্রেষ্ঠ মহামানব হলেন রাহমাতুল্লিল আলামিন হযরত রাসুল (সা.)। তিনি মহান আল্লাহ্র সর্বশ্রেষ্ঠ সৃষ্টি। তাঁকে সৃষ্টি করা না হলে আল্লাহ্ তায়ালা এ বিশ্বজাহানের কিছু সৃষ্টি করতেন না। তাঁকে সমগ্র বিশ্বের রহমতস্বরূপ প্রেরণ করেছেন। আল্লাহ তাঁর প্রিয় হাবিবের সুমহান মর্যাদা ও মাহাত্ম্য তুলে ধরে পবিত্র কুরআনে অনেক আয়াত নাজিল করেছেন। যে আয়াতগুলোর

রবিউস সানি মাসের তাৎপর্য ও আমল

সাব্বির আহমাদ ওসমানীমহান আল্লাহ্ সৃষ্টিজগতের মালিক, সর্বশক্তিমান একক সত্তা। সৃষ্টির সেরা জীব মানুষ। মানব জীবনের সবকিছুই আল্লাহ্র দান। আল্লাহ্র দেওয়া নিয়ামতগুলোর মধ্যে প্রথম নিয়ামত হলো জীবন। জগতে জীবনের স্থিতিকাল হলো আয়ু। আয়ু হলো সময়ের সমষ্টি। সময় অনাদি-অনন্ত। সময়ের প্রকৃত জ্ঞান সম্পর্কে আল্লাহ্ই সর্বাধিক জ্ঞাত। বস্তু বা ব্যক্তির সঙ্গে যুক্ত করে সময়কে বিশেষ

হযরত রাসুল (সা.)-এর মর্যাদা

ড. মোবারক হোসেনবিশ্বজাহানের মালিক মহান রাব্বুল আলামিন। মহান স্রষ্টার অপরূপ সৌন্দর্য বিভূষিত করে অগণিত সৃষ্টিরাজির চারণভূমি বিশ্বজগত সৃজন করেছেন। পৃথিবীতে মানবজাতিসহ অসংখ্য মাখলুকাত সৃষ্টি করে মানবজাতিকে সবার উপর শ্রেষ্ঠত্ব দান করেছেন। যে মহামানবকে উসিলা করে সৃষ্টিজগত সৃজন করেছেন তিনি সকল নবি-রাসুল তথা সকল সৃষ্টির মূল, সর্বকালের সর্বযুগের সর্বশ্রেষ্ঠ মহামানব, সাইয়্যেদুল মুরসালিন হযরত

মানব জীবনে মাৎসর্য রিপুর প্রভাব এবং মুক্তির উপায়

মানব জীবনে মাৎসর্য রিপুর প্রভাব এবং মুক্তির উপায়ড. পিয়ার মোহাম্মদমাৎসর্য বা হিংসার আভিধানিক অর্থ হলো ধ্বংসাত্মক ঈর্ষা, দ্বেষ, অনিষ্ট, পরশ্রীকাতরতা, বধ, হনন ইত্যাদি। হিংসা বা পরশ্রীকাতরতা আমাদের প্রাত্যহিক জীবনে চরম অশান্তি ডেকে আনে। পরশ্রীকাতরতার কয়েকটি দিক আছে। অন্যের ভালো কিছু দেখলে তার গা জ্বলে যাওয়া, অপর কেউ ভালো কিছু করলে তার বিরোধিতা

প্রকৃত মুসলমান ও কাফেরের পরিচয়

মহান সংস্কারক, মোহাম্মদী ইসলামের পুনর্জীবনদানকারী, সূফী সম্রাট হযরত সৈয়দ মাহ্বুব-এ-খোদা দেওয়ানবাগী (রহ.) হুজুর কেব্লাজান[সূফী সম্রাট হুজুর কেব্লাজান রচিত ‘শান্তি কোন পথে?’ ও ‘মুক্তি কোন পথে?’ কিতাব থেকে লেখাটি সংকলন করা হয়েছে।-সম্পাদক]ইসলাম শব্দ থেকে মুসলিম শব্দের উৎপত্তি। উভয় শব্দেরই মাদ্দাহ তথা শব্দমূল সিলমুন, যার অর্থ শান্তি। ইসলাম শব্দের অর্থ আত্মসমর্পণ করা, বশ্যতা স্বীকার

হযরত রাসুল (সা.)-এর ১৪৯৮তম শুভ জন্মদিন

সম্পাদকীয় অক্টোবর-২০২৩মহান রাব্বুল আলামিনের অপার দয়ায় তাঁর সর্বশ্রেষ্ঠ বন্ধু রাহমাতুল্লিল আলামিন হযরত রাসুল (সা.)-এর ১৪৯৮তম (হিজরি সাল অনুযায়ী) শুভ জন্মদিন উপলক্ষ্যে ১২ই রবিউল আউয়াল, ১৪৪৫ হিজরি; ২৮শে সেপ্টেম্বর, ২০২৩ইং, বৃহস্পতিবার দেওয়ানবাগ শরীফের পক্ষ থেকে আমার আহববানে অনলাইন প্ল্যাটফরমের মাধ্যমে অনুষ্ঠিত হয় ‘আশেকে রাসুল (সা.) সম্মেলন’। পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবি (সা.) যথাযথ মর্যাদায় উদ্যাপনের

জীবনচরিত – সাধক কবি হাফিজ (রহ.) ২য় পর্ব

সাধক কবি হাফিজ শিরাজী (রহ.) সাহিত্যজগতের এক পরম বিস্ময়। তাঁর কাব্য শুধু পারস্যে নয়, তথা সমগ্র বিশে^র মানবমনে এক সুদূরপ্রসারী প্রভাব বিস্তার করেছে। পাশ্চাত্যের কিছু মহান ব্যক্তির ওপরেও কবি হাফিজ (রহ.)-এর প্রভাব লক্ষণীয়। জার্মানির জাতীয় কবি গেটে মহাকালের মহাকবি হাফিজ পাঠে মুগ্ধ হয়ে তাঁর সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করে বলেন- “Hafiz! Lets share

হযরত রাসুল (সা.)-এর হিজরতের কারণ ও প্রেক্ষাপট

কামরুজ্জামান বাবুমানুষ জীবনের বিবর্তনে প্রায়শ এক স্থান থেকে অন্য স্থানে ছুটে যায়। কখনো ইচ্ছায়, কখনো অনিচ্ছায়। কখনো এক এলাকা থেকে অন্য এলাকায়, কখনো এক শহর থেকে অন্য শহরে, আবার কখনো এক দেশ থেকে অন্য দেশে। মূলত এ সবকিছুই হয়ে থাকে প্রয়োজনের তাগিদে। মানুষের এই ছুটে চলার প্রক্রিয়া ক্রমশ বিদ্যমান। এক দেশ হতে

পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবি (সা.): রহমত ও বরকতের দিন

ড. জাহাঙ্গীর আলমমহান আল্লাহ সমগ্র সৃষ্টিজগতের স্রষ্টা। সৃষ্টির পূর্বে তিনি ছিলেন এক ও অদ্বিতীয়। তিনি নিজেকে প্রকাশ করার জন্য সৃষ্টিজগত সৃজন করলেন। এই প্রসঙ্গে হাদিসে কুদসিতে আল্লাহ বলেন-“আমি ছিলাম গুপ্ত ধনাগার নিজেকে প্রকাশ করতে ভালোবাসলাম তাই সৃষ্টিজগত সৃজন করলাম। (সিররুল আসরার, পৃষ্ঠা ১০) মহান রাব্বুল আলামিন নুরময় সত্তা হতে নিজের সকল গুণ,